৮৩ কোটি টাকা ব্যয়ে খুলনায় নির্মাণ হচ্ছে আধুনিক কসাইখানা!!

বিপ্লব সাহা খুলনা ব্যুরো চীফ :

বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে আওয়ামী লীগ তথা শেখ হাসিনা সরকার ক্ষমতায় থাকলে কোনো উন্নয়ন থেকে পিছিয়ে থাকবে না শহর থেকে গ্রাম ও প্রত্যন্ত অঞ্চল।
প্রতিটা শহরকে আধুনিকায়ন করা ও গ্রাম অঞ্চলে আলোয় আলোকিত সহ যোগাযোগের ব্যবস্থা রাস্তাঘাট উন্নয়ন কোথাও কোনো কমতি রাখে নাই শেখ হাসিনা সরকার ।

তারই ধারাবাহিকতায় প্রায় ৮৩ কোটি টাকা ব্যয়ে খুলনা নির্মাণ হচ্ছে আধুনিক কসাইখানা। মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয় লাইভস্টোক এন্ড ডেইরি ডেভেলপমেন্ট প্রজেক্ট প্রকল্পের আওতায় এই কসাইখানা নির্মাণ হবে। এই প্রকল্পের ক্ষেত্রে বিশ্ব ব্যাংক অর্থের যোগান দিচ্ছে।

এদিকে খুলনা সিটি কর্পোরেশনের ভেটেরিনারি সার্জন ডক্টর পেরু গোপাল বিশ্বাস খুলনার সকল গণমাধ্যম কর্মীদের তথ্যটি নিশ্চিত করে বলেন খুলনা সাতক্ষীরা আঞ্চলিক মহাসড়কের রাজবাঁধে সিটি কর্পোরেশন ১০০ বিঘা জমির ওপর সেমি মর্ডান অটো স্লোটার হাউস নির্মাণ হবে।

কসাইখানার নির্মাণ কাজ শুরুর করতে আজ প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তর ও খুলনা সিটি কর্পোরেশন এর মধ্যে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়েছে। এরপর দরপত্র প্রক্রিয়া শেষ করে আগামী বছরের শুরু নাগাদ এই প্রকল্পের নির্মাণকাজ শুরু হবে।

তিনি আরো জানান আধুনিক কসাইখানায় পশু জবাইয়ের পর কোন ধরনের হাতের স্পর্শ ছাড়াই পশুর মাংস প্রক্রিয়াকরণ করা হবে।
সেখানে আধুনিক যন্ত্রপাতি বর্জ্য পরিশোধন ব্যবস্থার পশুর বিশ্রামাগার পশু জবেহ পূর্ব পরীক্ষণ কক্ষ পশু জবেহ পরবর্তী পরীক্ষা প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তর ও সিটি করপোরেশনের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা কর্মচারীদের কক্ষ সহ অন্যান্য সকল সুবিধা থাকার কথা উল্লেখ রয়েছে।

অপরদিকে খুলনা সিটি কর্পোরেশন ঊর্ধ্বতন সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের তথ্য থেকে জানা গেছে আধুনিক কসাইখানা নির্মাণের সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করতে গতকাল বিকাল তিনটায় ঢাকায় রওনা হন সিটি মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক। সন্ধ্যায় প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরে এই সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর হবে। অধিদপ্তরের পক্ষে প্রকল্প পরিচালক মোহাম্মদ আবদুর রহমান এবং খুলনা সিটি কর্পোরেশনের পক্ষে তালুকদার আব্দুল খালেক সমঝোতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন।
গতকাল প্রকল্প কার্যক্রম সম্পন্ন করে সিটি কর্পোরেশনের মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক তানার স্বাস্থ্য পরীক্ষা করার জন্য আজ সিঙ্গাপুরের উদ্দেশ্যে রওনা করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *